শুক্রবার, ১৯ জুলাই, ২০২৪, ৪ শ্রাবণ, ১৪৩১

পাকিস্তানি ক্রিকেটারকে ৫ বছর নিষিদ্ধ করলো আরব আমিরাত!

আরব আমিরাত জাতীয় দলের হয়ে খেলার কথা ছিল উসমান খানের। কিন্তু হঠাৎ করেই যেন এই ক্রিকেটারের ভাগ্যে পরিবর্তন হতে শুরু করলো। পিএসএলে মুলতান সুলতান্সের হয়ে খেলার কারণে আরব আমিরাতের এই ক্রিকেটারকে পাকিস্তানিরা জানিয়ে দেয়, চাইলে তিনি পাকিস্তান দলের হয়ে খেলতে পারেন। কারণ, উসমান খানের জন্ম হয়েছে পাকিস্তানের করাচিতে।

এ আশ্বাসের ফলেই আরব আমিরাতে ফিরে না গিয়ে পাকিস্তান ক্রিকেট দলের সঙ্গে অনুশীলন শুরু করেন উসমান খান। কিন্তু বিষয়টাকে সহজভাবে নিতে পারেনি আরব আমিরাত। তাদের কাছে এটা হয়ে গেছে দেশের সঙ্গে বিশ্বাসঘাতকতা। এর ফলে ৫ বছরের জন্য নিজেদের দেশের ক্রিকেটে উসমান খানকে নিষিদ্ধ করেছে আরব আমিরাত ক্রিকেট বোর্ড।

এই সময়ের মধ্যে আরব আমিরাতের সব ধরনের ক্রিকেট ইভেন্টে নিষিদ্ধ থাকবেন এই ব্যাটার। অর্থ্যাৎ, টি-টেন লিগ, আইএল টি-২০সহ আরব আমিরাত কর্তৃক আয়োজিত কোনো টুর্নামেন্টেই অংশ নিতে পারবেন না উসমান খান।

 

আরব আমিরাত ক্রিকেট বোর্ড এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, তারা এই নিষেধাজ্ঞার এই সিদ্ধান্তে উপণীত হয়েছে, যখন তারা দেখলো যে উসমান খান আরব আমিরাত ক্রিকেট বোর্ডের সঙ্গে কৃত ওয়াদার বরখেলাপ করেছে।

ইসিবি বলছে, ‘আরব আমিরাত ক্রিকেট বোর্ডের কাছে উসমান খান নিজেকে ভুলভাবে উপস্থাপন করেছে। আরব আমিরাতের হয়ে খেলার ভুয়া ইচ্ছার কথা জানিয়েছিলো আমাদেরকে। সে মূলতঃ এসব বলে আমাদের কাছ থেকে সুযোগ গ্রহণ করেছে এবং সুযোগ-সুবিধাগুলো ব্যবহার করেছে। তবুও সে বাইরের সুবিধাগুলো গ্রহণ করতে শুরু করেছে। এর অর্থ, সে আসলে ইসিবির হয়ে খেলতে রাজি নয় এবং অন্য দেশের হয়ে খেলার যে যোগ্যতা অর্জন করতে হয়, সেটাও অর্জন করতে ব্যর্থ হয়েছে।’

সম্প্রতি পাকিস্তান সুপার লিগে এই ক্রিকেটার যথেষ্ট ব্যাটিং ধামাকা দেখিয়েছিলেন উসমান খান। পিএসএলে টানা ২ ম্যাচে সেঞ্চুরিও করেন তিনি। পিএসএলে মোহাম্মদ রিজওয়ানের দল মুলতান সুলতান্স-এর হয়ে খেলেন। এবারের টুর্নামেন্টে উসমানের ব্যাট থেকে কার্যত রানের ফোয়ারা দেখা গিয়েছিল।

পিএসএলে বিধ্বংসী পারফরম্যান্সের পর পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডই উসমান খানকে বাবর-শাহিনদের সঙ্গে বিশ্বকাপ খেলার প্রস্তাব দেয়। পাশাপাশি উসমানও পাকিস্তান ক্রিকেট দলে যোগ দিতে খুব আগ্রহী হয়ে ওঠে।

ফলে ২০২৪ আইসিসি টি-২০ বিশ্বকাপে পাকিস্তান ক্রিকেট দলের জার্সিতে তাকে খেলতে দেখাও যেতে পারে। পিএসএল শেষ হতে না হতেই ক্রিকেটাররা ইতিমধ্যে নিজেদের দেশে ফিরে গিয়েছেন। কিন্তু, উসমান পাকিস্তান ক্রিকেটারদের সঙ্গে অনুশীলন করতে শুরু করেন।

 

উসমানের এ সিদ্ধান্তের কারণে ক্ষোভে ফেটে পড়ে আরব আমিরাত ক্রিকেট বোর্ড। যার ফলে এলো এই ৫ বছরের নিষেধাজ্ঞা। তবে বিশ্বকাপের আগে নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে সিরিজ খেলবে পাকিস্তান ক্রিকেট দল। আশা করা যায়, উসমান এই সিরিজেই পাকিস্তানের জার্সি পরে খেলতে নামতে পারেন।

Join Manab Kallyan