শুক্রবার, ১৯ জুলাই, ২০২৪, ৪ শ্রাবণ, ১৪৩১

বরিশালে বসবাসরত চিকিৎসক-নার্স-স্টাফদের ছুটি বাতিল

ঈদে বরিশালে বসবাসরত সব চিকিৎসক, নার্স ও অন্যান্য স্টাফদের ছুটি বাতিল করা হয়েছে। সোমবার (৮ এপ্রিল) দুপুরে এক নোটিশের মাধ্যমে শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক এ নির্দেশ প্রদান করেন। এর পাশাপাশি জরুরি বিভাগের জন্য অধিক চিকিৎসক রাখা হয়েছে।

হাসপাতাল সূত্র জানায়, প্রতি বছর ঈদুল ফিতরে মুসলিম বাদে অন্যান্য ধর্মাবলম্বী চিকিৎসক ও নার্সরা নিজের মধ্যে সমন্বয় করে ছুটি ভোগ করে থাকেন। এতে হাসপাতালে ঈদকালীন সময় চিকিৎসক ও নার্সসহ অন্যান্য স্টাফ সংকট দেখা দেয়। এতে রোগীদের ভোগান্তির শিকার হতে হয়। এ জন্য ঈদকালীন সময় চিকিৎসাধীন রোগীদের সঠিক স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করতে বরিশালের স্থানীয় সব চিকিৎসক, নার্স ও অন্যান্য স্টাফদের ছুটি বাতিলের নির্দেশ দেন।

পরিচালকের দেওয়া ছুটি বাতিলের নির্দেশনায় বলা হয়েছে, আগামী ১০, ১১ ও ১২ এপ্রিল প্রতিটি ওয়ার্ডে তিন রোস্টারে (সকাল, বিকাল ও রাত) পূর্বের ন্যায়ে চিকিৎসক, নার্স ও অন্যান্য স্টাফরা দায়িত্ব পালন করবে। তবে জরুরিভাবে ছুটি প্রয়োজন এমন চিকিৎসক, নার্স ও স্টাফদের ক্ষেত্রে সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ডের বিভাগীয় প্রধান কিংবা পরিচালককে অবহিত করতে হবে।

এর আগে ঈদকালীন সময় চিকিৎসক ও নার্সসহ অন্যান্য স্টাফদের ছুটি বাতিলের নির্দেশ প্রদানে পূর্বে এ বিষয়ে পরিচালক ডা. এইচ এম সাইফুল ইসলাম সব বিভাগীয় প্রধান, অধ্যাপক, সহযোগী অধ্যাপক, রেজিস্ট্রার, সহকারী রেজিস্ট্রার, সেবা তত্ত্বাবধায়ক ও নার্সিং ইনচার্জদের সঙ্গে বৈঠক করেন

হাসপাতালের আন্তঃবিভাগ বর্তমানে কর্মরত মিড লেভলের ১৫০ চিকিৎসকের সঙ্গে রোগী সেবা নিয়োজিত থাকবেন ২২৬ জন ইন্টার্ন চিকিৎসক। তাদের সহযোগিতা করবেন আরও ৮৮৯ জন সিনিয়র স্টাফ নার্স ও ৫৩ জন স্টাফ নার্স ছাড়াও ৪ শতাধিক অন্যান্য স্টাফ।

এ ব্যাপারে হাসপাতালের পরিচালক ডা. এইচ এম সাইফুল ইসলাম বলেন, ঈদে কোনো রোগীর অসুবিধা না হয় তার জন্য হাসপাতালে বিভিন্ন পদক্ষেপ হাতে নেওয়া হয়েছে। এছাড়া এ হাসপাতালে রোগী তুলনায় জনবল খুবই কম। তারপরও এই সংখ্যক স্বল্প জনবল দিয়ে সঠিক ভাবে সেবার সময় বণ্টনের মাধ্যমে সু-চিকিৎসা প্রদান করা সম্ভব।

Join Manab Kallyan